ডার্ক মোড
Sunday, 21 April 2024
ePaper   
Logo
জুলফিকার আহমদ কিসমতীর অষ্টম মৃত্যুবার্ষিকী

জুলফিকার আহমদ কিসমতীর অষ্টম মৃত্যুবার্ষিকী

নিজস্ব প্রতিবেদক

বিশিষ্ট সাংবাদিক, লেখক, বহু গ্রন্থপ্রণেতা মাওলানা জুলফিকার আহমদ কিসমতীর অষ্টম মৃত্যুবার্ষিকী সোমবার। অর্ধশতাব্দীর বেশি সময় সাংবাদিকতা পেশায় প্রসিদ্ধ, মূল্যবান গ্রন্থের লেখক হিসেবে দেশ-জাতি ও ইসলামের সেবায় অবদান রেখেছেন মাওলানা কিসমতী। তার প্রথম কর্মজীবন *রু শিক্ষকতা দিয়ে।

তিনি বাংলাদেশ বেতার বহির্বিশ্ব কার্যক্রমের আরবি সংবাদ পাঠ-পর্যালোচক ও দৈনিক সংগ্রামের সিনিয়র সহকারী সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। তিনি জাতীয় প্রেস ক্লাবের স্থায়ী সদস্য, বাংলা একাডেমির সদস্য, ইসলামিক ফাউন্ডেশন সম্পাদনা পরিষদের সদস্য ও ফ্রাঙ্কলিন পাবলিকেশন্স প্রকাশিত প্রথম বাংলা বিশ্বকোষের অন্যতম প্রদায়ক ছিলেন।

‘আজাদী আন্দোলনে আলেম সমাজের সংগ্রামী ভূমিকা, ‘চিন্তাধারা, ‘এই সময় এই জীবন, ‘বাংলাদেশের সংগ্রামী ওলামা পীর-মাশায়েখ, ‘মহানবী সা:, ‘গণতন্ত্রের পহেলা শহীদ- শহীদে কারবালা, ‘আদর্শ কিভাবে প্রচার করতে হবে, ‘আল কুরআনের দৃষ্টিতে সমাজসেবা, শরিয়তি রাষ্ট্রব্যবস্থা, সোভিয়েত ইউনিয়নে মুসলমান, ‘উপসাগরীয় সঙ্কট, উপমহাদেশে ইসলামী শিক্ষা সংস্কৃতি ক্রমবিকাশের ইতিহাসসহ ৩০টির বেশি মূল্যবান গ্রন্থ রচনা ও অনুবাদ করেন তিনি।

নিরলস এ কর্ম সাধকের ওপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় আরবি বিভাগে এম ফিল ডিগ্রি- ‘মাওলানা জুলফিকার আহমদ কিসমতী : আরবি ও বাংলা ভাষায় সাহিত্য চর্চা ও সাংবাদিকতা’ শীর্ষক অভিসন্দর্ভ উপস্থাপিত হয়। দেশের এই গুণী ব্যক্তিত্ব কুমিল্লা চৌগ্রিাম বাগৈগ্রাম মোক্তার বাড়ির এক সম্ভ্রান্ত পরিবারের সন্তান। ১ঝ৩৫ সালে তিনি পাশের লালমাই সদর দক্ষিণ উপজেলাধীন কিসমত চলু*া গ্রাম মাতুলালয়ে জন্ম লাভ করেন। ২০১৫ সালের ২৭ ডিসেম্বর ঢাকার ইউনাইটেড হসপিটালে কিডনি ও হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে তিনি ইন্তেকাল করেন।

জুলফিকার আহমদ কিসমতীর মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে রূহের মাগফিরাত কামনায় তার পরিবার, *ভাকাঙ্খী, *ভানুধ্যায়ীর পক্ষ থেকে দেশবাসীর কাছে দোয়া চাওয়া হয়েছে।

মন্তব্য / থেকে প্রত্যুত্তর দিন

আপনি ও পছন্দ করতে পারেন